অখিলেশ আমার নেতা, আমার লক্ষ্য তাকে ইউপি মুখ্যমন্ত্রী বানানো : শিবপাল সিং যাদব - Breaking Bangla |breakingbangla.com | Only breaking | Breaking Bengali News Portal From Kolkata |

Breaking

Post Top Ad

Monday, 10 January 2022

অখিলেশ আমার নেতা, আমার লক্ষ্য তাকে ইউপি মুখ্যমন্ত্রী বানানো : শিবপাল সিং যাদব



সমাজবাদী পার্টির সভাপতি অখিলেশ যাদবের কাকা প্রগতিশীল সমাজবাদী পার্টির (লোহিয়া) প্রধান শিবপাল সিং যাদব বলেন তাঁর ভাগ্নে তাঁর নেতা। শিবপাল সিং বলেন যে অখিলেশের সঙ্গে তিনি ২০২২ সালের ইউপি বিধানসভা নির্বাচনের পরে সমাজবাদী পার্টি সরকার গঠনের জন্য কাজ করবেন।

শিবপাল যাদব বলেন “অখিলেশ যাদব এখন একজন পরিণত ব্যক্তি এবং আমার একমাত্র লক্ষ্য তাকে উত্তরপ্রদেশের পরবর্তী মুখ্যমন্ত্রী করা। পুরানো বিতর্কিত বিষয়গুলি নিয়ে কথা বলার কোনও মানে নেই এবং এখন দল এবং পরিবারে কোনও অন্তর্দ্বন্দ্ব নেই। সবাই পরবর্তী সরকার গঠনের জন্য অপেক্ষা করছে।" 

তিনি বলেন “অখিলেশ মুখ্যমন্ত্রী হয়েছেন ও চারবার সাংসদ হয়েছেন এবং তিনি বিরোধী দলে ছিলেন এবং তার দুই দশকেরও বেশি অভিজ্ঞতা রয়েছে এবং এখন তিনি আরও পরিণত। আমি পুরানো বিষয় নিয়ে কথা বলতে চাই না। আমি এখন এগিয়ে যেতে চাই। আমাদের মূল লক্ষ্য হল ২০২২ সালে অখিলেশকে ইউপির মুখ্যমন্ত্রী করা।"

শিবপাল যাদব বলেন “নিঃসন্দেহে নেতাজি (মুলায়ম সিং যাদব) সবচেয়ে ‘দুমদার’ (শক্তিশালী) রাজনীতিবিদ। এখন সময় এসেছে ভাগ্নেকে দমদার বানানোর।" কেন তিনি দলের অভ্যন্তরে দ্বন্দ্বের পূর্বাভাস দেননি জানতে চাইলে শিবপাল বলেন “আশা করার মতো কিছুই ছিল না, নেতাজি যা বলেছেন আমি সবসময় শুনেছি। দলে বা পরিবারে কখনো মারামারি হয়নি।”

সমাজবাদী পার্টির সঙ্গে আসন ভাগাভাগির সূত্রে শিবপাল যাদব বলেন "আমরা সবসময়ই সমাজবাদী ছিলাম এবং সমাজতান্ত্রিক সমাজের জন্য কাজ করেছি। আমরা কয়েক দশক ধরে এসপির সঙ্গে যুক্ত রয়েছি।" তিনি বলেন যে "এসপির বিরুদ্ধে বংশবাদী রাজনীতির অভিযোগ ভিত্তিহীন এবং আমরা জনগণের জন্য লড়াই করেছি এবং শেষ পর্যন্ত আজ যা পেয়েছি তা অর্জন করার আগে অনেক কিছু ছেড়ে দিয়েছি।"

দলের প্রতীক নিয়ে কথা বলতে গিয়ে পিএসপিএল নেতা বলেন ‘আমাদের প্রতীক আর আমাদের কাছে নেই, এখন আমরা জোটগতভাবে লড়ব। আমরা যা সিদ্ধান্ত নেব তা হবে কৌশল অনুসারে, আমাদের একমাত্র লক্ষ্য হল ভারতীয় জনতা পার্টিকে বিতাড়িত করা এবং অখিলেশকে ইউপির পরবর্তী মুখ্যমন্ত্রী করা। আমরা দলের মধ্যে এবং অখিলেশের সঙ্গে একীভূতকরণ নিয়ে আলোচনা করব।”

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad