রূপঙ্কর বাগচী প্রয়াত বিতর্কিত বক্তব্যের জন্য চাইলেন ক্ষমা - Breaking Bangla |breakingbangla.com | Only breaking | Breaking Bengali News Portal From Kolkata |

Breaking

Post Top Ad

Saturday, 4 June 2022

রূপঙ্কর বাগচী প্রয়াত বিতর্কিত বক্তব্যের জন্য চাইলেন ক্ষমা



 বাংলার জনপ্রিয় গায়ক রূপঙ্কর বাগচী, প্রয়াত জনপ্রিয় গায়ক কেকে কে নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য করে, সমস্যায় পড়েছেন।  গায়ক কে কে মারা যাওয়ার কয়েক ঘণ্টা আগে রূপঙ্কর বাগচী ফেসবুকে একটি ভিডিও শেয়ার করে প্রশ্ন করেছিলেন কে কে কে?  আমি যেকোনও কেকের চেয়ে ভালো।  এর কয়েক ঘণ্টা পর গায়ক কে কে মারা যান। 


এরপরই সোশ্যাল মিডিয়ায় তাঁর বক্তব্য নিয়ে ট্রোলড হতে থাকে।  ফোনে তাকে প্রাণনাশের হুমকি দেওয়া হয়।  রূপঙ্করের স্ত্রীও ইমেলের মাধ্যমে থানায় অভিযোগ দায়ের করেন।  এরপর তিনি শুধু ফেসবুক থেকে নিজের ভিডিও মুছে দেননি, কলকাতা প্রেসক্লাবে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে ক্ষমাও চেয়েছেন।


 সংবাদ সম্মেলনে রূপঙ্কর বাগচী বলেন, “প্রথমেই আমি প্রয়াত গায়ক কেকের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানাচ্ছি।  আমার ভিডিওটি গত কয়েকদিন থেকে সোশ্যাল মিডিয়ায় আলোচনার বিষয় হয়ে উঠেছে।  আমি সেই ভিডিও ফেসবুক থেকে সরিয়ে দিয়েছি। আমার ভিডিওটি আমার পুরো পরিবারকে চরম আতঙ্ক ও শোকের মধ্যে ঠেলে দিয়েছে।  পুরো পরিবার আতঙ্কে রয়েছে। আমার স্ত্রীর ফোনে প্রতিনিয়ত হুমকি আসছে।  গায়ক হিসেবে দেশ-বিদেশের কোটি কোটি মানুষের ভালোবাসা পেয়েছি।  বছরের পর বছর ধরে আমি সবসময় তার আবেগ অনুভব করেছি।  বিভিন্ন পর্যায়ে স্বীকৃতি পেয়েছি।  কে জানত আমার এই অসাবধানতা এই রূপ নেবে।  আমি সত্যিই এটি কল্পনাও করিনি।"


 রূপঙ্কর বলেন যে" প্রয়াত কেকে র সাথে আমার কোন ব্যক্তিগত শত্রুতা নেই এবং থাকার কোন প্রশ্নই আসে না।  আমি শুধু তার কনসার্ট দ্বারা সৃষ্ট উন্মাদনা নির্দেশ করতে চেয়েছিলাম।  বাঙালি গায়কদের জন্য একই সহানুভূতি দেখানোর জন্য।    আমি কেকে নিয়ে কিছু বলতে চাইনি।    কলকাতার মঞ্চে একজন শিল্পী গান গেয়েছেন, তিনি যেভাবে এসে প্রাণ হারিয়েছেন তা খুবই হৃদয়বিদারক।  কোনো বিশেষ ব্যক্তিকে নিয়ে খারাপ কথা বলা আমার উদ্দেশ্য ছিল না।  এতে যদি তার পরিবার ও সমর্থকদের মনে আঘাত লেগে থাকে, তাহলে আমি এর জন্য ক্ষমাপ্রার্থী।"

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad