স্বাস্থ্যের জন্য এসি হতে পারে বিপদজনক - Breaking Bangla |breakingbangla.com | Only breaking | Breaking Bengali News Portal From Kolkata |

Breaking

Post Top Ad

Tuesday, 3 May 2022

স্বাস্থ্যের জন্য এসি হতে পারে বিপদজনক



 প্রচণ্ড গরমে শরীর ঠান্ডা রাখার একমাত্র উপায় হলো এসি চালানো।  এসি-তে বসলেই ঘাম শুকিয়ে যায় এবং গরম থেকে স্বস্তি দেয়, কিন্তু আপনি কি জানেন এই এসি মারাত্মকও হতে পারে।


 এমন অনেক ঘটনা ঘটেছে যেখানে এসি-তে ঘুমিয়ে থাকা পরিবার সকালের মুখ দেখতে পায়নি।  অনেক সময় এসির কম্প্রেসার ফেটে গিয়ে প্রাণ হারিয়েছেন মানুষ। 


এসি-তে এমন অনেক বিষাক্ত গ্যাস রয়েছে, যা ফুটো হয়ে গেলে প্রাণ পর্যন্ত হতে পারে।  দীর্ঘক্ষণ এসি-তে ঘুমনো বা কাজ করার ফলেও অনেক স্বাস্থ্যজনিত সমস্যা হয়।  আপনিও যদি এসি ব্যবহার করেন, তাহলে এই গুরুত্বপূর্ণ বিষয়গুলো খেয়াল রাখুন।


 এসিতে ঘুমানো কতটা বিপজ্জনক?


 ঘর ও অফিস ঠান্ডা করে এমন এসি স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর।  এতে নানা ধরনের সমস্যার সৃষ্টি হচ্ছে।

  এসিতে দীর্ঘক্ষণ ঘুমলে সকালে মাথা ব্যথা হতে পারে।

 এসিতে ঘুমালে শ্বাস নিতে কষ্ট হয় এবং গলা খারাপ হতে থাকে।

 কম তাপমাত্রায় এসি চালালে অ্যালার্জি বা মাথাব্যথা শুরু হতে পারে।

 শিশু ও বৃদ্ধদের দীর্ঘক্ষণ এসি-তে রাখলে তাদের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা দুর্বল হয়ে পড়ে।

 এসি চালানোর সময় ঘর বন্ধ থাকে, সেক্ষেত্রে অক্সিজেনের অভাব হতে পারে।

 এসি-তে ঘুমলে হাঁচি ও ঠান্ডা গরম হতে পারে।


 এসি থেকে গ্যাস লিক হচ্ছে কিনা তা কীভাবে বোঝা যাবে :


 এসি থেকে গ্যাস লিকিং সম্পর্কে জানা খুব কঠিন।  কারণ গ্যাস লিক হলে কোনও গন্ধ থাকে না।  তবে গ্যাস লিক হওয়ার কিছু কারণ রয়েছে যা আপনার মনে রাখা উচিৎ ।

 এসি ঠিকমতো লাগানো না থাকলে গ্যাস লিক হতে পারে।

 এসি পাইপ পরীক্ষা করে নিন, পাইপে কোনও ত্রুটি থাকলে গ্যাস লিকের সমস্যা হতে পারে।

 যদি আপনার এসি পুরানো হয় এবং টিউবে মরিচে ধরে যায় বা এটি ঠিকমতো ঠাণ্ডা না হয় তাহলে গ্যাস লিক হতে পারে।


 কীকী বিষয় মাথায় রাখা উচিৎ :


 শুধুমাত্র একজন প্রত্যয়িত মেকানিক বা বিশ্বস্ত ব্যক্তির দ্বারা এসি পরিষেবা পান।

 দিনে কিছুক্ষণ এসি রুমের জানালা-দরজা খুলে রাখুন।

 গ্যাস ভর্তি করার সময় এসি গ্যাসের গুণমানের দিকে খেয়াল রাখুন।

 উইন্ডো এসির বদলে স্প্লিট এসি ব্যবহার করুন, ভালো হয়।


 কত তাপমাত্রায় এবং কত ঘন্টা এসি চালাতে পারে?


 কেউ কেউ তাপ থেকে বাঁচতে পেতে ১৬ বা ১৮ ডিগ্রি তাপমাত্রায় এসি চালান।  যা স্বাস্থ্য ও বিল অনুযায়ী ভুল।  বাড়িতে বা অফিসে ২৫-২৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রায় এসি চালানো উচিৎ ।


  একবার এসি চালিয়ে রুম ঠান্ডা করুন এবং কিছুক্ষণ পর এসি বন্ধ করুন।  সারাদিন এসি-তে থাকলে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা দুর্বল হয়ে যেতে পারে।

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad