বিদ্যুৎতে ভর্তুকির সিদ্ধান্ত অরবিন্দ কেজরিওয়ালের - Breaking Bangla |breakingbangla.com | Only breaking | Breaking Bengali News Portal From Kolkata |

Breaking

Post Top Ad

Saturday, 7 May 2022

বিদ্যুৎতে ভর্তুকির সিদ্ধান্ত অরবিন্দ কেজরিওয়ালের



 দিল্লিতে বিদ্যুতে ভর্তুকি ১ অক্টোবর থেকে স্বেচ্ছায় হবে৷  দিল্লিতে এখন যারা বিদ্যুতে ভর্তুকি পাবেন, বা যারা ভর্তুকি চাইছেন, এই বিষয়ে, দিল্লি সরকার সমস্ত বিদ্যুৎ গ্রাহকদের বেছে নেওয়ার বিকল্প দেবে।  মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়ালের নেতৃত্বে দিল্লির মন্ত্রিসভা আজ এই গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত নিয়েছে।


 সিএম অরবিন্দ কেজরিওয়াল বলেছেন যে বিদ্যুতের বিল পরিশোধ করতে সক্ষম ব্যক্তিদের কাছ থেকে প্রাপ্ত পরামর্শের পরে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।  বিদ্যুতে ভর্তুকি প্রয়োজন বা না হোক, সরকার এখন প্রতিটি গ্রাহককে একটি বিকল্প দেবে।  যারা ভর্তুকি চাইবে তারা ভর্তুকি পাবে আর যারা ভর্তুকি চাইবে না তারা পাবে না।


 এছাড়াও, দিল্লী মন্ত্রিসভা ২০২২-২৩ আর্থিক বছরেও বিদ্যুৎ ভর্তুকি প্রকল্প চালিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।  মন্ত্রিসভার এই সিদ্ধান্তে, দিল্লীর প্রায় ৪৭১১১৭৬ বিদ্যুৎ গ্রাহক, যারা করোনা মহামারীর পরে মুদ্রাস্ফীতির মুখোমুখি হচ্ছেন, তারা অনেকটাই স্বস্তি পাবেন।


 গত বছরের মতো একই আর্থিক বছরে গার্হস্থ্য বিদ্যুৎ গ্রাহক, কৃষক, আদালত চত্বর, আইনজীবীদের চেম্বার এবং ১৯৮৪ সালের শিখ দাঙ্গার শিকার ব্যক্তিরা বিদ্যুতে ভর্তুকি সুবিধা পেতে থাকবে।


 মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়ালের সভাপতিত্বে আজ দিল্লী সচিবালয়ে মন্ত্রিসভার বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়।  মন্ত্রিসভার বৈঠকে বিদ্যুৎ বিভাগের পক্ষ থেকে বিদ্যুৎ ভর্তুকি প্রকল্প অব্যাহত রাখার প্রস্তাব করা হয়।  এই রেজোলিউশনে বলা হয়েছিল যে দিল্লি সরকার গার্হস্থ্য ভোক্তা, কৃষক, আদালত প্রাঙ্গণ এবং আইনজীবীদের চেম্বারে ভর্তুকি প্রদান করবে।


 মন্ত্রিসভা অধিদফতরের এই প্রস্তাবের ওপর গুরুত্বের সঙ্গে আলোচনা করে এবং করোনা মহামারীর পর মূল্যস্ফীতির কবলে পড়া জনগণকে কিছুটা স্বস্তি দিতে চলমান অর্থবছরে (২০২২-২৩) বিদ্যুৎ ভর্তুকি প্রকল্প চালু রাখার প্রস্তাব অনুমোদন করেছে।


 এই সিদ্ধান্ত নিয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল মন্ত্রিসভার সিদ্ধান্ত সম্পর্কে তথ্য দিয়ে বলেছেন যে দিল্লিতে বহু মানুষ বিনামূল্যে বিদ্যুৎ পান।  এর জন্য দিল্লি সরকার ভর্তুকি দেয়।  


 দিল্লী সরকার ২০১৬-১৭সালে বিদ্যুৎ ভর্তুকি প্রকল্প শুরু করেছিল।  বিদ্যুতের উপর ভর্তুকি সরকার দিল্লির জনগণকে কয়েকটি বিভাগে ভাগ করে দেয়।  দিল্লি সরকার ২০০ইউনিট পর্যন্ত বিনামূল্যে বিদ্যুৎ সরবরাহ করে।  ২০০ ইউনিটের কম বিদ্যুৎ ব্যবহারকারী গ্রাহকদের জন্য ১০% বিদ্যুৎ বিল মওকুফ করা হয়েছে।


 দিল্লীতে বসবাসকারী ১০৮৪ সালের শিখ দাঙ্গার শিকারদেরও কেজরিওয়াল সরকার বিদ্যুতে ভর্তুকি দেয়।  দিল্লীতে শিখ দাঙ্গায় ভুগছেন এমন ৭৫৮ জন বিদ্যুৎ গ্রাহক এর সুবিধা পাচ্ছেন।  এর পাশাপাশি দিল্লি সরকার কৃষকদের ১২৫ ইউনিট পর্যন্ত বিনামূল্যে বিদ্যুৎ দেয়, যা আরও অব্যাহত থাকবে।

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad