কিডনির রক্ষাকবচ: আপনার প্রতিদিনের খাদ্য তালিকায় যেসকল খাবার রাখবেন অবশ্যই - Breaking Bangla |breakingbangla.com | Only breaking | Breaking Bengali News Portal From Kolkata |

Breaking

Post Top Ad

Friday, 3 September 2021

কিডনির রক্ষাকবচ: আপনার প্রতিদিনের খাদ্য তালিকায় যেসকল খাবার রাখবেন অবশ্যই




নিউজ ডেস্ক: কিডনি আমাদের শরীরে স্থাপন করা এমন একটি ফিল্টার যা, শরীর থেকে বিষাক্ত পদার্থ বের করে দেয়। ডায়েট বিশেষজ্ঞ ডঃ রঞ্জনা সিংহের মতে, খারাপ খাদ্যাভ্যাস কিডনিতে খারাপ প্রভাব ফেলতে পারে। এর ফলে কিডনিতে পাথর হওয়া থেকে শুরু করে কিডনিতে ক্যান্সার পর্যন্ত হতে পারে। তাই কিডনি সুস্থ রাখতে অবশ্যই আপনার খাদ্যতালিকায় স্বাস্থ্যকর খাবার অন্তর্ভুক্ত করতে হবে।


কিডনি কিভাবে কাজ করে?

কিডনি শরীরের একটি গুরুত্বপূর্ণ অঙ্গ। এর প্রধান কাজ হল শরীর থেকে বর্জ্য পদার্থ ফিল্টার করা এবং শরীর রাসায়নিক মুক্ত এবং স্বাস্থ্যকর রক্তের সরবরাহের ভারসাম্য বজায় রাখা।


কিডনিতে যখন অতিরিক্ত চাপ পড়ে, তখন কিডনি ফেল হওয়ার ঝুঁকি বেড়ে যায়। এর পেছনের কারণ হতে পারে উল্টোপাল্টা খাওয়া, ভুল অভ্যাস এবং অনিয়ন্ত্রিত জীবন যাপন। এমতাবস্থায় কিডনির স্বাস্থ্যের যত্ন নেওয়া সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ। এর জন্য কিছু খাবার আছে, যা কিডনির বিশেষ যত্ন নেয়। তেমনই ৫ টি খাবার নিয়ে আজকের এই প্রতিবেদন-


ফুলকপি

ফুলকপি ভিটামিন সি, ফোলেট এবং ফাইবারের ভালো উৎস হিসেবে পরিচিত। এটি ইনডোলস, গ্লুকোসিনোলেটস এবং থিওসায়ানেট সমৃদ্ধ। ফুলকপি যদি নিয়মিত খাদ্য তালিকায় রাখা যায়, তবে কিডনি সুস্থ রাখা সম্ভব।


পালং শাক

পালং শাক কিডনি সুস্থ রাখতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। এই শাকে ভিটামিন এ, সি, কে, আয়রন, ম্যাগনেসিয়াম এবং ফোলেট প্রচুর পরিমাণে পাওয়া যায়। পালং শাকে পাওয়া বিটা ক্যারোটিন রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে সাহায্য করে। খাদ্য তালিকায় পালং শাক যোগ করলে কিডনি সুস্থ রাখা যায়।


রসুন

ডঃ রঞ্জনা সিংহের মতে, রসুন কিডনির জন্য খুবই উপকারী। এতে খুব কম পরিমাণে সোডিয়াম, পটাশিয়াম এবং ফসফরাস রয়েছে যা কিডনি রোগে আক্রান্তদের জন্য উপকারী। খাদ্য তালিকায় রসুন রাখুন এবং কিডনি সুস্থ রাখুন।


আনারস

আনারসকে কিডনি বান্ধব ফল বলা হয়ে থাকে। কিডনি সমস্যা দেখা দিলে অনেকেই পটাশিয়াম বেড়ে যাওয়ার ভয়ে ফল খাওয়া এড়িয়ে চলেন। তবে আনারস এক্ষেত্রে ব্যতিক্রম। এই ফল কিডনির স্বাস্থ্যের জন্য খুব উপকারী বলে মনে করা হয়। এটি নিয়মিত খেলে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা শক্তিশালী হয়। এতে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে ফাইবার, যা কিডনি সংক্রান্ত রোগ কমাতেও সাহায্য করে।


ক্যাপসিকাম

রান্নায় স্বাদ বৃদ্ধিই নয়, ক্যাপসিকাম কিডনির জন্যও খুব উপকারী। ক্যাপসিকাম অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট সমৃদ্ধ। এছাড়া, এতে ভিটামিন সি-ও রয়েছে প্রচুর পরিমাণে। কিডনি সুস্থ রাখতে তাই আপনার খাদ্য তালিকায় ক্যাপসিকাম রাখুন।

No comments:

Post a Comment

Post Top Ad